উন্নয়ন থামিয়ে দেয়ার জন্য জঙ্গি সৃষ্টি করা হয়েছে: বরিশালে খাদ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত :১৪.০৫.২০১৭, ৩:১৯ অপরাহ্ণ

শামীম আহমেদ বরিশাল : বরিশালে খাদ্য মন্ত্রী এ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম বলেছেন আমাদের উন্নয়ন থামিয়ে দেয়ার জন্য দেশে জঙ্গি সৃস্টি করা হয়েছে।
আমরা দু’বার দেশে আগুন সন্ত্রাস দেখেছি তারপরও আমরা উন্নয়নের দিকে এগিয়ে যাচ্ছি। আমাদের কাজ দৃশ্যমান এখানে কোন ভেলকি বাজী নেই।
বাংলাদেশ থেকে অর্থ ফিরিয়ে নেয়ার পড়েও আমরা নিজ অর্থায়নে পদ্মা সেতু নির্মান কাজ করা হচ্ছে।

রোববার বরিশাল সার্কিট হাউজ সভাকক্ষে বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের সহযোগীতায় ও বরিশাল বিভাগীয় প্রশাসনের আয়োজনে বিভাগীয় কমিশনার মোঃ শহিদুজ্জামানের সভাপতিত্বে নিরাপদ খাদ্য আইন ২০১৩ বাস্তবায়ন জনসচেতনতা শীর্ষক কর্মশালার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি একথা বলেন।

খাদ্য মন্ত্রী এ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম আরো বলেন আমাদের ২১ শালকে নকল করে খালেদা জিয়া ৩০সালের একটি উৎভট চিন্তার ভিশন ঘোষনা করেছে।আজ উত্তরাঞ্চলে মঙ্গা নেই মানুষের উপার্জন বেড়েছে।আমরা ২৫লক্ষ মেট্রিক টন খাদ্য ঘাটতি নিয়ে সরকার গঠন করেছিলাম এখন আমরা বিশ্বে ৪র্থ স্থান চাল উৎপাদনকারী দেশ।

তিনি আরো বলেন আমরা আজ তথ্য প্রযুক্তিতে এগিয়ে যাচ্ছি এক সময়ে এনিয়ে যারা ব্যাঙ্গ করেছে তারাই এখন বেশী ব্যাবহার করছেন।এসময় তিনি বলেন সবার মধ্যে নিরাপদ খাদ্য ব্যাবস্থার জন্য গন সচেতনতা সৃস্টি করার আহবান জানান।

 

এর পরই খাদ্য মন্ত্রী জেলা প্রশাসকের দপ্তরে খাদ্য শষ্য সংগ্রহ বিষয়ে খাদ্য বিভাগীয় কর্মকর্তাদের সাথে এক মত বিনিময় সভায় অংশ নেয়।এসময় বরিশাল আঞ্চলিক খাদ্য নিয়ন্ত্রক আমজাদ হোসেন সহ বিভাগীয় খাদ্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

কর্মশালায় বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন খাদ্য মন্ত্রালয়ের সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি সংসদ সদস্য মোঃ আব্দুল ওয়াদুদ দারা।অনান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বরিশাল সদর সংসদ সদস্য জেবুন্নেছা আফরোজ,সংসদ সদস্য এ্যাড,তালুকদার মোঃ ইউনুস,নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মাহফুজুল হক,বরিশাল জেলা প্রশাসক ড.গাজী মোঃ সাইফুজ্জামান।

দিন ব্যাপি কর্মশালার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ সদস্য মোঃআব্দুল বাতেন মিঞা।

এর পূর্বে সকাল ৯টায় অশ্বিনী কুমার টাউন হল চত্বর থেকে বিভাগীয় কমিশনার মোঃ শহিদুজ্জামানের নেতৃত্বে এক বন্যাঢ্য র্যা লি বেড় হয় র্যা লিটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন করে।