srilonka

খুলে নেওয়া হলো মাঠকর্মীদের প্যান্ট!

প্রকাশিত :১২.০৭.২০১৭, ৬:২২ অপরাহ্ণ

সারাবেলা ডেস্ক : হাম্বানটোটায় জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজের শেষ ওয়ানডের পর খুলে নেওয়া হয়েছে মাঠকর্মীদের প্যান্ট! প্রথমে শুনে বিশ্বাস না-ও হতে পারে। কিন্তু সত্যি সত্যিই এই তীব্র অপমানজনক ঘটনা ঘটিয়েছে কর্তৃপক্ষ। এ ঘটনায় তোলপাড় শ্রীলঙ্কা।
জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে মাঠকর্মীদের ট্রাউজার দিয়েছিল এসএলসি। বলা হয়েছিল, এই প্যান্ট পরেই দায়িত্ব পালন করতে হবে তাদের। কিন্তু পরিষ্কার বলা হয়নি, সিরিজ শেষে পোশাকটা ফেরতও দিতে হবে। নিয়ম মেনে সিরিজের শেষ ওয়ানডেতেও মাঠকর্মীরা এসএলসির পোশাক পরেন। কিন্তু ম্যাচের পর তারা জানতে পারেন, এসএলসির দেওয়া ট্রাউজার না খুলে দিলে তাদের পারিশ্রমিক দেওয়া হবে না। কিন্তু তারা তো আর অতিরিক্ত প্যান্ট নিয়ে আসেননি।

বাধ্য হয়ে সবাইকে ফেরত দিতে হয় প্যান্ট। এমনকি ভেন্যু থেকে তাদের বেরোতে হয়েছে শুধু অন্তর্বাস পরে! যাদের পরনে অন্তর্বাস ছিল না, তাদের খুব সম্ভবত একেবারে নগ্ন হয়ে বেরোতে হয়েছে। সেটি নিশ্চিত করা না গেলেও শুধু অন্তর্বাস পরে মাঠকর্মীরা স্টেডিয়াম থেকে বেরোচ্ছেন, এমন একটা ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক মাধ্যমে। সেই ভিডিও রিটুইট করেছেন শ্রীলঙ্কার সাবেক অধিনায়ক মাহেলা জয়াবর্ধনে।

হাম্বানটোটার মাহিন্দা রাজাপক্ষে আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে কাজ করা ১০০ মাঠকর্মীদের সবাই স্থানীয়, সিরিজের জন্য সাময়িক তাদের ভাড়া করেছিল এসএলসি। প্রতিদিনের মজুরি ঠিক করা হয়েছিল এক হাজার রুপি। একজন মাঠকর্মী বলেছেন, ‘কাপড় নেওয়ার পরও তারা পুরোপুরি মজুরি দেয়নি।’ আরেকজনের অভিযোগ, ‘তারা (এসএলসি) আমাদের আরেক সেট কাপড়ও আনতে বলেনি। যখন তারা ট্রাউজার ফেরত দিতে বলল, আমাদের কিছু করার ছিল না।’

এ ঘটনায় ক্ষমা চেয়েছে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট। যারা এর জন্য দায়ী, তদন্তের ভিত্তিতে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছে এসএলসি। ক্ষুদ্ধ হয়েছেন শ্রীলঙ্কার ক্রীড়ামন্ত্রী দায়াসিরি জয়াসেকেরাও। দায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছেন তিনি, ‘বিষয়টা মেনে নিতে পারছি না। ছয় দিন ব্যবহার করা একটা ট্রাউজার কোথায় কাজে লাগাবেন? এ ব্যাপারে তদন্ত করা হবে।’ সূত্র: বিবিসি, এএফপি ও ক্রিকইনফো।