mahi

‘খালেদা জিয়া ও শেখ হাসিনার শাসন নয়, আইনের শাসন চাই’

প্রকাশিত :১৫.০৭.২০১৭, ৫:৪০ অপরাহ্ণ

সারাবেলা ডেস্ক : ‘খালেদা জিয়া ও শেখ হাসিনার শাসন চাই না, আমি জনগণের শাসন চাই, আইনের শাসন চাই’ বলে মন্তব্য করেছেন বিকল্পধারার যুগ্ম মহাসচিব মাহী বি চৌধুরী।

তিনি বলেন, এ সরকার ভোটবিহীন, প্রহসনের নির্বাচনের মাধ্যমে ক্ষমতায় এসেছে। তারা আইনের শাসনে বিশ্বাস করে না। সেজন্য সরকারে টিকে থাকতে আজ শক্তি, ক্ষমতা প্রয়োগ করছে।

শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে আয়োজিত ‘দেশে অব্যাহত গুম-খুন-অপহরণ : শংকিত নাগরিক সমাজ’ শীর্ষক এক গোলটেবিল বৈঠকে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

‘আদর্শ নাগরিক আন্দোলন’র ঈদ পূুনর্মিলনী উপলক্ষে এ গোলটেবিল বৈঠকের আয়োজন করা হয়।

এতে প্রধান অতিথি ছিলেন, বিএনপি’র স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমেদ ও প্রধান আলোচক ছিলেন নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না।

মাহী বি চৌধুরী বলেন, ক্ষমতায় টিকে থাকতে মরিয়া আওয়ামী লীগ। বিএনপিও মরিয়া ক্ষমতায় যেতে। ক্ষমতায না থাকলে যদি গুম-খুনের শিকার হতে হয়, তবে সে রাজনীতি আমাদের বন্ধ করতে হবে। জনগণের শাসন, আইনের শাসন প্রতিষ্ঠাই এর একমাত্র সঠিক পথ। এ কথা আমি হয়তো আওয়ামী লীগের মঞ্চে বলতে পারতাম না।

আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত হলে, মন্ত্রীর উল্টাপথে চলা বন্ধ হবে, মন্ত্রীর ভাতিজার টেন্ডারবাজি বন্ধ হবে, ওসি দাবড়ানো, রাতে ছোট দলগুলোর চায়ের দাওয়াতের অনুষ্ঠান পুলিশ দিয়ে পণ্ড করাও বন্ধ হবে। বন্ধ হবে ইলিয়াস আলীসহ সব গুমি, আইভী রহমান ও কিবরিয়া হত্যা বন্ধ হবে। বন্ধ হবে মাজার জিয়ারত না করার অজুহাতে রাষ্ট্রপতিকে অভিশংসনের মাধ্যমে পদচ্যুত করাও।

তিনি আরও বলেন, যে দলে আদর্শ সন্তানের গুরুত্ব রক্তের সম্পর্কের সন্তানের চেয়ে বেশি হবে না, সে দল আইনের শাসনের দল নয়। তাদের দিয়ে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত হবে না।

আদর্শ নাগরিক আন্দোলনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মুহাম্মদ মাহমুদুল হাসানের সভাপতিত্বে বৈঠকে বিশেষ অতিথি ছিলেন, গণফোরামের সভাপতি অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী, স্বাধীনতা ফোরামের চেয়ারম্যান আবু নাসের মুহাম্মদ রহমতুল্লাহ, নাগরিক ফোরামের চেয়ারম্যান আবদুল্লাহিল মাসুদ।