ট্রাফিক দক্ষিণ বিভাগের দেওয়া পথ নির্দেশক। ডিএমপি থেকে পাওয়া
ট্রাফিক দক্ষিণ বিভাগের দেওয়া পথ নির্দেশক। ডিএমপি থেকে পাওয়া

১৫ আগস্ট যেসব রাস্তা বন্ধ থাকবে

প্রকাশিত :১৩.০৮.২০১৭, ৪:২৯ অপরাহ্ণ

সারাবেলা ডেস্ক : ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে ধানমন্ডি ৩২ ও বনানী কবরস্থানের আশপাশের কিছু রাস্তা বন্ধ থাকবে। এ সময় কোথায় পার্কিং করা যাবে আর কোথায় যাবে না, তা জানিয়েছে ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি)।

ডিএমপি কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া আজ রোববার ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে নেওয়া কর্মসূচির নিরাপত্তা ব্যবস্থা তদারকি শেষে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন। খবর ইউএনবির

ডিএমপি কমিশনার বলেন, ভিভিআইপি, ভিআইপি এবং ঊর্ধ্বতন সামরিক ও বেসামরিক কর্মকর্তারা মানিক মিয়া অ্যাভিনিউ-মিরপুর রোড-ধানমন্ডি ২৭ নম্বর ক্রসিং-মেট্রো শপিং মল ডানে মোড়-ধানমন্ডি ৩২ নম্বর পশ্চিম প্রান্ত দিয়ে প্রবেশ করবেন এবং একই পথে বের হয়ে যাবেন। অন্যদিকে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান, দল, সংগঠন এবং সর্বসাধারণ ধানমন্ডি ৩২ নম্বরের পূর্ব প্রান্ত দিয়ে প্রবেশ করবেন এবং পশ্চিম প্রান্ত দিয়ে বের হয়ে যাবেন। নির্ধারিত স্থান ছাড়া পার্কিং করা যাবে না।

যানবাহন চলাচল ব্যবস্থা সম্পর্কে ডিএমপি কমিশনার বলেন, সোনারগাঁও ক্রসিং থেকে রাসেল স্কয়ার পর্যন্ত যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে। সিটি কলেজ থেকে রাসেল স্কয়ার পর্যন্ত যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে। ধানমন্ডি ২৭ নম্বর থেকে রাসেল স্কয়ার পর্যন্ত যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে। এ ছাড়া রাসেল স্কয়ার থেকে সোবহানবাগ মসজিদ পর্যন্ত সব ধরনের পার্কিং বন্ধ থাকবে। ট্রাফিক দক্ষিণ বিভাগের দেওয়া পথ নির্দেশক অনুযায়ী চলাচলের জন্য জনগণের প্রতি আহ্বান জানান তিনি।

সাধারণ নাগরিকদের জন্য ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে যাওয়া একমুখী হবে উল্লেখ করে ডিএমপি কমিশনার বলেন, তাঁরা পূর্ব দিক দিয়ে ঢুকে পশ্চিম দিক দিয়ে বের হবেন।

ডিএমপি কমিশনার জানান, রাষ্ট্রপতি বঙ্গভবন থেকে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর পর্যন্ত এবং প্রধানমন্ত্রী গণভবন থেকে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর ও সেখান থেকে বনানী কবরস্থান পর্যন্ত চলাচলে সড়ক নিরাপত্তা ও ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা নিশ্চিত করা হয়েছে। রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীসহ ভিআইপিরা ধানমন্ডি ৩২ নম্বর ত্যাগ করার পর ব্যারিকেড ব্যবস্থা শিথিল করা হবে।