image-10317

বৃষ্টি, জলাবদ্ধতায় নাকাল রাজধানীবাসী

প্রকাশিত :১১.০৯.২০১৭, ১২:৫৭ অপরাহ্ণ

সারাবেলা ডেস্ক : সোমবারের সকালটা বৃষ্টি দিয়েই শুরু হয়েছে। সকাল সাড়ে ছয়টা থেকেই আকাশ কালো করে মেঘ জমে। এরপর শুরু হয় মুষলধারে বৃষ্টি। প্রায় টানা বর্ষণের রাজধানীর বিভিন্ন সড়কে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। এ কারণে সৃষ্টি হয় যানজট। এতে স্কুল-কলেজগামী শিক্ষার্থী, অফিসগামী মানুষকে গন্তব্যে যেতে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।
আবহাওয়া অধিদপ্তর থেকে আজ সকাল সোয়া ৯টায় জানানো হয়, রাজধানী ঢাকায় আজ সকাল ৬টা থেকে সকাল ৯টা পর্যন্ত তিন ঘণ্টায় ৬৬ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে।

রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা ঘুরে সর্বত্রই ভোগান্তির চিত্র দেখা গেছে। মহানগরীর নতুনবাজার থেকে জোয়ার সাহারা, সাতরাস্তা থেকে কারওয়ানবাজার মোড়, সায়েন্সল্যাব থেকে নিউমার্কেট-নীলক্ষেত, গুলশান-১ ও গুলশান-২ মার্কেট এলাকার সড়ক, গুলশান পিংক সিটি মার্কেট সড়ক, গুলিস্তান, পুরান ঢাকার বিপণিবিতান ও মিরপুর এলাকার বিপণিবিতানে যাতায়াতের সড়কগুলোতে দেখা গেছে জলাবদ্ধতা, সেই সঙ্গে তীব্র যানজট। এসব সড়কের সামনে রিকশা, অটোরিকশা, মাইক্রোবাস, বাস, মোটরবাইকে যাত্রীদের ঘণ্টার পর ঘণ্টা বসে থাকতে দেখা গেছে।
এছাড়া আবাসিক এলাকা ধানমণ্ডি, লালমাটিয়া, মোহাম্মদপুর, আদাবরের বিপণিবিতানগুলোর সামনের সড়কেও তীব্র যানজট সৃষ্টি হয়।
যাত্রাবাড়ী, শান্তিনগর, পুরান ঢাকার আলাউদ্দিন রোড, নাজিমউদ্দিন রোড, শহীদনগর এলাকার অলিগলি, মালিবাগ, মধুবাজার, খিলক্ষেত এলাকাসহ মহানগরীর বিভিন্ন এলাকার সড়কে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়। ফলে ওই এলাকার বাসিন্দাদের সীমাহীন ভোগান্তির শিকার হতে হয়েছে।
মিরপুর মধ্য পাইকপাড়ার বাসিন্দা সামিনা বলেন, সোমবারের বৃষ্টিতে মধ্য পাইকপাড়া, মিরপুর-১ নম্বর এলাকার সড়কগুলো পানিতে তলিয়ে গেছে। বৃষ্টির জন্য দ্বিগুণ-তিনগুণ ভাড়া বেশি চেয়েছে সব রিকশাওয়ালা। ৩৫ টাকার ভাড়া ৭০ টাকা দিয়ে মিরপর-১ নম্বর বাসস্টেশনে আসতে হয়েছে।
এ প্রসঙ্গে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের (ডিএনসিসি) অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী সৈয়দ কুদরত উল্লাহ বলেন, নতুনবাজার থেকে জোয়ার সাহারা সড়কসহ নগরীর বিভিন্ন এলাকায় উন্নয়নকাজের জন্যই সড়ক খোঁড়াখুঁড়ি করা হচ্ছে। এটি দ্রুততম সময়ের মধ্যে শেষ করতে আমরা চেষ্টা চালাচ্ছি। এ অবস্থার মধ্যে নগরবাসী ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন এটি সত্য, কিন্তু এক্ষেত্রে আমাদের বাড়তি তেমন কিছু করার নেই।
ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী মো. আসাদুজ্জামান বলেন, ঢাকা দক্ষিণের কিছু এলাকায় উন্নয়নকাজ চলছে। এ কারণে জলজট ও জলাবদ্ধতায় নগরবাসীর কিছুটা ভোগান্তি হচ্ছে সত্য। তবে আমরা ভোগান্তির মাত্রা কমিয়ে আনার চেষ্টা অব্যাহত রেখেছি। জলজট ও জলাবদ্ধতা নিরসনের জন্য বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে।
আবহাওয়া দপ্তর সূত্র জানায়, শুধু রাজধানীতে নয়, সারা দেশেই মৌসুমী বায়ু সক্রিয় রয়েছে। আবহাওয়ার পূর্বাভাসে রংপুর, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম ও সিলেটেও ভারী বৃষ্টিপাতের আশঙ্কার কথা বলা হয়েছে। মৌসুমী বায়ু সক্রিয় থাকায় ভারী বৃষ্টিপাত হচ্ছে।