ইন্টারনেট ব্যবহারে শিশুদের নিরাপত্তা জরুরি!

প্রকাশিত :১২.১১.২০১৭, ৭:১১ অপরাহ্ণ

ডেস্ক রিপোর্ট : শিক্ষার্থীদের দায়িত্বশীলতার সঙ্গে ইন্টারনেট ব্যাবহার সম্পর্কে সচেতন করার উদ্যোগ নিয়েছে গ্রামীণফোন। এর অংশ হিসেবে ব্র্যাকের সহায়তায় রোববার সকালে রাজধানীর অদূরে স্যার জন উইলসন স্কুলে সচেতেনামুলক কর্মসুচী অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এতে বক্তারা বলেন, ইন্টারনেট ব্যাবহারের ক্ষেত্রে শিশুদের নিরাপত্তা বিধান আমাদের জন্য সর্বাধিক গুরুত্বপূর্ণ কাজ। এ বিষয়ে সবাইকে সচেতন থাকতে হবে এবং শিক্ষার্থীদেরকে সজাগ করে তুলতে হবে।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, গ্রামীণফোনের প্রধান নির্বাহী মাইক্যাল প্যাট্রিক ফোলি, স্যার জন উইলসন স্কুলের অধ্যক্ষ সাবরিনা সাহেদ, গ্রামীণফোনের কর্পোরেট চিফ অ্যাফেয়ার্স অফিসার মাহমুদ হোসেন প্রমুখ।

মাইক্যাল প্যাট্রিক ফোলি বলেন, কীভাবে একজন শিক্ষার্থী দায়িত্বশীলতার সঙ্গে ইন্টারনেট ব্যবহার করবে সেটা জানাতে গ্রামীণফোন দেশজুড়ে চাইল্ড অনলাইন সেফটি সচেতেনামুলক কর্মসুচী হাতে নিয়েছে। আমরা চেষ্টা করছি চাইল্ড অনলাইন সেফটি নিশ্চিত করতে।

অধ্যক্ষ সাবরিনা সাহেদ বলেন, আমরা শিক্ষার্থীদের দায়িত্বশীল করে তুলতে অভিভাবকদের সঙ্গে কথা বলেছি। আলোচনা করছি কীভাবে শিক্ষার্থীদের দায়িত্বশীল করে তোলা যায়।

কী কী উপায়ে সচেতনতা ও দক্ষতার সঙ্গে ইন্টারনেট ব্যবহার করা যায় সে বিষয়ে শিশুদের শিক্ষা দিতে হবে।

নিরাপদ ইন্টারনেট কর্মসুচীর অংশ হিসেবে দেশের পাঁচশ বিদ্যালয়ে ৮০ হাজার শিক্ষার্থীর কাছে গ্রামীণফোন ইতোমধ্যে এই আহ্বান পৌঁছে দিয়েছে।

আজসারাবেলা/মুয়াজ/বিজ্ঞান-প্রযুক্তি