কুষ্টিয়ায় ছুরিকাঘাতে দুই তরুণ নিহত

প্রকাশিত :১৪.০১.২০১৮, ৪:৩৪ অপরাহ্ণ

ডেস্ক রিপোর্ট: কুষ্টিয়া শহরের চৌড়হাস এলাকায় ছুরিকাঘাতে দুই তরুণ নিহত হয়েছেন। লাশ দুটি কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে রয়েছে।

রোববার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে চৌড়হাস এলাকায় কুষ্টিয়া সদর উপজেলার প্রধান ফটকের এক শ গজ দূরে উপজেলা সড়কের মোড়ে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, চৌড়হাস এলাকার ডাবলু করিমের ছেলে শিশির আহমেদ (২৪) ও তোফাজ্জেল হোসেনের ছেলে সোহানুর রহমান (১৮)।

শিশির একটি বেসরকারি কারখানায় চাকরি করত। সোহানুর কুষ্টিয়া মিরপুর উপজেলায় আমলা সরকারি কলেজের উচ্চমাধ্যমিকে প্রথম বর্ষের ছাত্র ছিল।

ঘটনার কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শী বলেন, শামীমের বাড়ির পাশে বাঁশঝাড়ে সকালে আগুন পোহানো হচ্ছিল। সেখানে সোহানুর পোড়ানোর জন্য একটি পুরোনো আসবাব নিয়ে যায়। এ সময় শামীমের চাচি তাকে চোরের ছেলে বলে। এ নিয়ে চাচীকে সোহানুর গালিগালাজ করে। এরপর শামীম ও সোহানুরের মধ্যে কথা-কাটাকাটি হয়।

কুষ্টিয়া মডেল থানার পরিদর্শক (অপারেশন) শেখ ওবায়দুল্লাহ বলেন, শামীম তার এক আত্মীয়কে নিয়ে সাইকেলে করে উপজেলা মোড়ে সোহানের বাড়ির সামনে পৌঁছালে সেখানে আগে থেকে উপস্থিত সোহানের সঙ্গে আবারও বাগ্‌বিতণ্ডা ও হাতাহাতি হয়। এ সময় সোহানের সঙ্গে থাকা তার সঙ্গীরা মিলে শামীমকে আঘাত করে। এ সময় উভয় পক্ষের মধ্যে ধস্তাধস্তি হয়। ছুরিকাঘাতে শামীম ও সোহানুর গুরুতর আহত হন। তবে কে কাকে ছুরি দিয়ে আঘাত করেছে, তা জানা যায়নি। তাদের উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হয়। হাসপাতালের নেওয়ার আধঘণ্টার মধ্যে দুজনই মারা যায়।

পরিদর্শক ওবায়দুল্লাহ আরও বলেন, এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদেও জন্য কয়েকজন থানায় নেওয়া হয়েছে। মামলার বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন।

আজ সারাবেলা/সংবাদ/জ্যাকি/সারাদেশ