১৩ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে মোস্তাফিজের ‘বৌভাত’

সারাবেলা রিপোর্ট: অনেকটা চুপিসারে বিয়ের কাজটি সম্পন্ন করেছেন জাতীয় দলের তারকা ক্রিকেটার মোস্তাফিজুর রহমান। মায়ের ইচ্ছাতে পারিবারিকভাবেই মামাতো বোন সুমাইয়া পারভীন শিমুকে বিয়ে করেন ‘কাটার মাস্টার’ খ্যাত এই পেসার।

গত ২২ মার্চ সাতক্ষীরার দেবহাটা উপজেলার হাদিপুর গ্রামের বাসিন্দা সুমাইয়া পারভীন শিমুকে বিয়ে করেন মোস্তাফিজুর রহমান। শিমু বর্তমানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মনোবিজ্ঞান বিভাগের ছাত্রী। শিমুর বাবা রওনাকুল ইসলাম বাবু মোস্তাফিজুর রহমানের মেজো মামা।

জাতীয় দলের তারকা ক্রিকেটার হলেও বিয়েটা সম্পন্ন হয় বড় ধরনের কোন আয়োজন ছাড়াই অনেকটা ঘরোয়া পরিবেশে। যেখানে হাতেগোনা পরিবারের কয়েকজন ছাড়া তাদের উভয় পরিবারের কোন আত্মীয়-স্বজনও ছিলেন না। তবে মোস্তাফিজের পরিবারের পক্ষ থেকে তখন জানানো হয়েছিল, বিশ্বকাপ শেষ হওয়ার পর অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হবে। যেখানে থাকবেন অতিথিসহ উভয় পরিবারের আত্মীয়-স্বজন।

ইংল্যান্ডে বিশ্বকাপ মিশন শেষ বাংলাদেশের। এদিকে মোস্তাফিজুর রহমানের সাতক্ষীরার কালিগঞ্জ উপজেলার তেঁতুলিয়া ইউনিয়নের গ্রামের বাড়িতে চলছে বৌভাত আয়োজনের প্রস্তুতি। ১৩ জুলাই শনিবার অনুষ্ঠিত হবে মোস্তাফিজের বৌভাত। আত্মীয় স্বজনসহ শুভাকাঙ্খীদের আমন্ত্রণ জানানো ও বাড়িতে সাজসজ্জার কাজও চলছে জোরেসোরে।

মোস্তাফিজুর রহমানের সেজো ভাই মোকলেসুর রহমান পল্টু জানান, পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়েছে মোস্তাফিজের। আগামী ১৩ জুলাই বৌভাত অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। সে অনুযায়ী আয়োজনের প্রস্তুতিও চলছে। চলছে সাজসজ্জার কাজও।

বিয়েতে আমন্ত্রিত অতিথি কারা থাকবেন? এমন প্রশ্নে তিনি বলেন, ‘আত্মীয়-স্বজনের পাশাপাশি এলাকাবাসী থাকবেন।’ তবে জাতীয় দলের অন্য কোন খেলোয়াড় অনুষ্ঠানে যোগ দিবেন কিনা, সেটির বিষয়ে স্পষ্ট কিছু জানাননি তিনি।

এদিকে, আগামী ৭ জুলাই মোস্তাফিজ দেশে ফিরে আসার পর ১০ জুলাই সাতক্ষীরার গ্রামের বাড়িতে ফিরবেন বলে জানান মোস্তাফিজের ঘনিষ্ঠ বন্ধু হাফিজুর রহমান হাফিজ।

আজ সারাবেলা/সংবাদ/সিআ/খেলাধুলা

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.